Press "Enter" to skip to content

সায়েন্স সিটিতে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান “নেম” এর পুরস্কার বিতরণী সমারোহ

Spread the love

সুজিৎ চট্টোপাধ্যায় : পৃথিবী জুড়েই শিক্ষার দুনিয়াতে এসেছে বৈপ্লবিক পরিবর্তন। ￰এদেশেও সেই পরিবর্তনের আঁচ মিলছে। শিক্ষিতের হার বাড়ছে। বাড়ছে শিক্ষার খরচ। ￰মেধা থাকলেও যেমন সব ছাত্রছাত্রীদের ডাক্তার ইঞ্জিনিয়ার হওয়া সম্ভব হচ্ছে না, ঠিক তেমনই অনেকে পছন্দ করছেন অন্যান্য পেশা। কিন্তু সাধারণ মধ্যবিত্ত পরিবারের পক্ষে উপযোগী জীবিকা সংক্রান্ত পেশাদারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের অভাব থেকেই গেছে। গত সাত বছর আগে তাই বি কে মন্ত্রী ও অমরেশ সিংয়ের উদ্যোগে গড়ে ওঠে ন্যাশনাল একাডেমি অফ মিডিয়া এন্ড ইভেন্টস সংক্ষেপে “নেম” নামে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান।
ইন্টারন্যাশনাল ইভেন্ট ডিজাইনার এক্সপো নামে এক মেলা আয়োজিত হয়েছে কলকাতার সায়েন্স সিটিতে তেরো নম্বর প্যাভিলিয়নে। ১৩ই ডিসেম্বর থেকে শুরু হওয়া এই মেলা চলবে পঁচিশে ডিসেম্বর পর্যন্ত। ২৩শে ডিসেম্বর সোমবার সন্ধ্যায় ছিল নেম শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের সফল ছাত্রছাত্রীদের স্বীকৃতিসূচক পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান। ছিল সেমিনার ও প্রশ্নোত্তর পর্ব। অংশ নেন দি ভবানীপুর এডুকেশন সোসাইটির ডিন দিলীপ শাহ, ইভেন্টফ্যাক্স এর ডিরেক্টর দীপক চৌধুরী, পিন্কাথনের এম ডি ও সহ প্রতিষ্ঠাতা রিমা সাংভি, মিস ইন্ডিয়া ইউনিভার্স উষশী সেনগুপ্ত ,মিডিয়া বিশেষজ্ঞ উজ্জ্বল কুমার চৌধুরী ,প্রোক্যাম ইন্টারন্যাশনাল যুগ্ম পরিচালক বিবেক সিং ,ললিত গ্যাতানি ,বিনোদ ভান্ডারী ,নিধি পোদ্দার ,প্রমোদ লুনাওত, চেতন ভোরা, বিজয় বোকাডিয়াসহ ইভেন্ট ম্যানেজমেন্ট দুনিয়ার বিশিষ্টরা।
নেম এর তরফে বি কে মন্ত্রী বলেন ,নেম শিক্ষা প্রতিষ্ঠান কলকাতায় শুরু হলেও এখন মুম্বাইতেও শাখা হয়েছে। নতুন বছরে দিল্লি, পাটনা এবং দক্ষিণ ভারতে ফ্রাঞ্চাইজি দেওয়া হচ্ছে। প্রতিবছর ধারাবাহিক ভাবে বিভিন্ন ইভেন্ট সংগঠিত করে ছাত্রছাত্রীদের হাতেকলমে শিক্ষা দেওয়া হয়। আর্থিক ভাবে দুর্বল ছাত্রছাত্রীদের স্কলারশিপ দেওয়া হচ্ছে গত তিন বছর ধরে। প্রয়োজনে এই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের আর্থিক ভাবে দুর্বল পড়ুয়া ছাত্রছাত্রীদের বিনা খরচে সুযোগ দিয়ে সমাজের মূলস্তরে নিজেকে যোগ্য প্রমান করার ব্যাপারে সহযোগিতা করা হয়।

More from GeneralMore posts in General »

Be First to Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *