Press "Enter" to skip to content

দমদম পার্ক তরুণ সঙ্ঘের আয়োজনে ৫ম বার্ষিক দুদিনব্যপী কন্ট্রাক্ট ব্রীজ প্রতিযোগিতা….।

Spread the love

গোপাল দেবনাথ : কলকাতা, ১০ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪। বাংলায় একটা প্রবাদ আছে তাস দাবা পাশা তিন কর্মনাশা। আজকের দিনে এই কথা মোটামুটি ভাবে অচল বলা যেতে পারে। দাবা এবং তাস খেলা আজ সারা বিশ্বজুড়ে সমাদৃত। অবসর সময় কাটানোর জন্য এই খেলা দুটির কোনো জুড়ি নেই। কন্ট্রাক্ট ব্রিজ প্রতিযোগিতা আন্তর্জাতিক স্তরে যেমন আয়োজিত হয় ঠিক তেমনই রাজ্য সহ সারা শহরে এই প্রতিযোগিতা আয়োজিত হয়ে থাকে। তবে দমদম পার্ক তরুণ সঙ্ঘের কথা বিশেষ ভাবে উল্লেখ করতে হয়।

এই দমদম পার্ক তরুণ সঙ্ঘের আয়োজনে  প্রীতিশ কুশারী ও দলীপ দত্ত’র স্মরণে ৫ম বার্ষিক দুইদিনব্যপী কন্ট্রাক্ট ব্রীজ প্রতিযোগিতার আয়োজন করেন। সারা ভারতবর্ষ থেকে ৩২০ জন প্রতিযোগী এই প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করেন। এই খেলাটি পরিচালনা করছেন ওয়েস্ট বেঙ্গল ব্রীজ এসোসিয়েশনের পক্ষে দুই ডিরেক্টর তন্ময় ঘোষ এবং দেবব্রত রায় চৌধুরী। প্রতি মুহূর্তে দুই অভিজ্ঞ ডিরেক্টর এই খেলার খুঁটি নাটি হিসেব রাখছিলেন।

এই কন্ট্রাক্ট ব্রীজ খেলাটি মোট ১১ রাউন্ডের। সকাল থেকে শুরু হওয়া এই খেলা চলে রাত পর্যন্ত। অংশগ্রহণকারী প্রতিযোগীরা এশিয়াড, বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন সহ পৃথিবীর নানা দেশ থেকে পুরস্কারপ্রাপ্ত। তারা তাদের অভিজ্ঞাতায় জানালেন আমাদের মধ্যে বহুজন আছেন যারা এই খেলার মাধ্যমে সরকারি চাকরি পেয়েছেন। এক প্রতিযোগী বলেন এই খেলা খেলতে গেলে প্রতি মুহূর্তে অঙ্ক সহ বুদ্ধিমত্তা একান্ত জরুরি। তবে কন্ট্রাক্ট ব্রীজ শেখানোর জন্য কোনো সংস্থা এখানে নেই। তবে আমরা ব্যক্তিগত ভাবে এই খেলায় উৎসাহীদের শিখিয়ে থাকি। উপস্থিত প্রতিযোগীরা আয়োজকদের আয়োজনে খুশি বলে জানা গেল। ১০ ফেব্রুয়ারি শনিবার ও ১১ ফেব্রুয়ারি রবিবার দুদিন ধরে কন্ট্রাক্ট ব্রীজ খেলাটি আয়োজিত হচ্ছে।

শেষদিনে বিজয়ী প্রতিযোগীদের আর্থিক পুরস্কার দিয়ে সম্মানিত করা হবে। দমদম পার্ক তরুণ সঙ্ঘের পক্ষে কন্ট্রাক্ট ব্রীজ খেলাটি আয়োজন এ মুখ্য ভূমিকা পালন করেন রথীন কুন্ডু। তরুণ সঙ্ঘের স্পোর্টস সেক্রেটারী মৃন্ময় গাঙ্গুলি বলেন এই ধরণের কন্ট্রাক্ট ব্রীজ খেলার আয়োজন করতে পেরে আমরা খুবই খুশি। আয়োজকরা বলেন ৩২০ জন প্রতিযোগীদের অংশগ্রহণ আমাদের আগামীদিনে এগিয়ে যেতে সাহায্য করবে।

তরুণ সঙ্ঘের সভাপতি রবীন গাঙ্গুলি উপস্থিত সাংবাদিকদের বলেন আমরা কেবলমাত্র দুর্গাপুজো নিয়েই মেতে থাকি না। সারা বছর ধরে নানা ধরণের সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের সাথে সাথে নানা ধরণের খেলাধুলার আয়োজন করে থাকি। এত মানুষের কন্ট্রাক্ট ব্রীজ খেলায় অংশগ্রহণ এ আমরা সত্যিই আপ্লুত।

More from CultureMore posts in Culture »
More from InternationalMore posts in International »
More from SportMore posts in Sport »

Be First to Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *