Press "Enter" to skip to content

থাইল্যান্ডে করোনায় সেবা দিচ্ছেন এমন চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মীদের বিনে পয়সায় চুল কেটে দিচ্ছেন হেয়ার স্টাইলিস্ট পর্নসুপা………

Spread the love

—-কৃতজ্ঞতা জানাতে বিনে পয়সায় চুল কাটা—–

বাবলু ভট্টাচার্য: ঢাকা, করোনা সংকটে অনেকেই অনেক ভাবে দুঃস্থদের সহায়তা করছেন৷ কিন্তু থাইল্যান্ডের এক হেয়ার স্টাইলিস্ট সেক্ষেত্রে ভিন্ন পন্থা বেছে নিয়েছেন৷ করোনায় সেবা দিচ্ছেন এমন চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মীদের বিনে পয়সায় চুল কেটে দিচ্ছেন তিনি৷ যেসব স্বাস্থ্যকর্মী সরাসরি করোনা রোগীদের সেবা দিচ্ছেন, তাদের চুল কেটে দিতে পর্নসুপা হাতায়ং হাসপাতালে যাচ্ছেন৷ ব্যাংককের বিভিন্ন হাসপাতালে গিয়ে তাদের বিনে পয়সায় চুল কেটে দিচ্ছেন তিনি৷ কাজটা শুরু করার আগে বেশ দ্বিধায় ছিলেন তিনি৷ মানুষ কী মনে করবে! কিন্তু হাসপাতালের ডাক্তার, নার্স ও কর্মীরা তার এ কাজকে যেভাবে স্বাগত জানিয়েছেন, তাতে তিনি মুগ্ধ৷ করোনা সংকটের কারণে গত একমাস ধরে বন্ধ থাইল্যান্ডের চুল কাটার সেলুনগুলো৷ এরপর থেকে করোনা রোগী আছে এমন বিভিন্ন হাসপাতালে যান তিনি৷ প্রতিদিন গড়ে ৫০ জনের চুল কাটেন৷ এ জন্য জনপ্রতি প্রায় ৫০০ বাথ খরচ করতে হয়৷ তবে হাসপাতালে যাওয়ার সময় সব ধরনের প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা নিয়েই যান তিনি৷ প্রতিটা সরঞ্জাম জীবানুনাশক দিয়ে বার বার পরিষ্কার করেন৷ গত এক মাস ধরে নিজের জমানো অর্থ দিয়েই সংসার চলছে তার৷ কিন্তু এই কাজটি তাকে আত্মতৃপ্তি দিচ্ছে বলে জানালেন পর্নসুপা৷ বিনে পয়সায় চুল কাটলেও স্টাইলে কোনো ফাঁক রাখছেন না তিনি৷ জানালেন, ডাক্তাররা তার কাজে দারুণ খুশি৷ কেননা, এর ফলে তারা কিছুটা হাল্কা বোধ করেন এবং প্রশান্তি আসে মনে৷ এমনই একজন ডাক্তার তিরাপাত জিতপুনকুসন জানালেন, মানবতার জন্য পর্নসুপা যে কাজ করছেন তা সত্যিই প্রশংসনীয়৷ এটা কেবল চুল কাটা নয়, তার চেয়ে বেশি কিছু বলে মনে করেন তিনি৷

বৃহস্পতিবার পর্যন্ত থাইল্যান্ডে করোনা ভাইরাসে সংক্রমিত রোগীর সংখ্যা ছিল প্রায় তিন হাজার৷ এখন পর্যন্ত মারা গেছে ৫৪ জন৷ সংক্রমণ কম হওয়ায় খুব শিগগিরই লকডাউন উঠিয়ে নেয়ার পরিকল্পনা করছে সরকার৷

More from GeneralMore posts in General »

Be First to Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *