Press "Enter" to skip to content

সাগরে ১০০০ জন স্থানীয় মানুষের হাতে প্রয়োজনীয় খাদ্য সামগ্রী, বস্ত্র, পানীয় জল তুলে দিলেন জনদরদী মানুষ।

গোপাল দেবনাথ : সাগর : ৩১ মে, ২০২১। করোনা অতিমারীর দ্বিতীয় ঢেউ মানুষের জীবন দুর্বিষহ করে তুলেছে। সাধারণ খেটে খাওয়া মানুষের অবস্থা খুবই খারাপ বলা যেতে পারে। বেশিরভাগ জায়গাতেই মানুষের জীবিকার সুবিধা নেই।

গত বছরের করোনা অতিমারী সেই সাথে পূর্নাঙ্গ লকডাউন তার সাথে আমফান সুপার সাইক্লোনের স্মৃতি আজও সাধারণ মানুষের স্মৃতিতে তাজা আছে। চারিদিকে এত রকম সমস্যা সাই সাথে আংশিক লকডাউন তারই মাঝে  সঙ্গ দিতে দেখা গেল ঘূর্ণিঝড় “যশ” – কে ।

যশ এর ফলে রাজ্যের বিভিন্ন জায়গায় হয়েছে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি । অনেক মানুষ হারিয়েছেন নিজের প্রিয় জরুরি জিনিষের সাথে বসত বাড়ি টুকু। কেউ বা খুইয়েছেন নিজের আপনজনকে, মিলছে না বেঁচে থাকার জন্য দুবেলা দু-মুঠো খাওয়ার। এমনই একটি কঠিন পরিস্থিতে, কিছু অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়াতে এগিয়ে এলেন – সমাজসেবী এবং গঙ্গাসাগর রিসার্চ সেন্টারের ডিরেক্টর কৃষ্ণেন্দু রায়, জ্যোতির্ময় পাবলিক স্কুলের ডিরেক্টর ড. চন্দন গাঙ্গুলি,

আন্তর্জাতিক ওয়াটার প্লো খেলোয়াড় রবীন বলদেব, আন্তর্জাতিক জিমনাষ্ট গোবিন্দ প্রামাণিক সহ বিশিষ্টজন। সাগরের শিবরামপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের অন্তর্গত মিলনী সংঘের সামনে, যশে যে সকল পরিবারের ক্ষতি হয়েছে এমন ১০০০ জন স্থানীয় মানুষের হাতে প্রয়োজনীয় খাদ্য সামগ্রী, বস্ত্র, পানীয় জল বিতরণের মাধ্যমে পাশে দাঁড়ানোর চেষ্টা করলেন।

More from GeneralMore posts in General »

Be First to Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.