Press "Enter" to skip to content

আমাদের দেশে শিল্পীকে পুরো খরচ বহন করে শিল্প-প্রকাশ করতে হয়। আবিষ্কার করতে হয়……।

ডঃ পি সি সরকার :(জুনিয়র) বিশ্বখ্যাত জাদুশিল্পী ও বিশিষ্ট লেখক। কলকাতা, ২৫, এপ্রিল ২০২১। রাশিয়ার সর্বশ্রেষ্ঠ মঞ্চ-মায়াবী, জাদুকর ‘কিয়ো’ ছিলেন রাশিয়া -গভর্ণমেন্ট, মানে রাশিয়ার জনগণের গর্বের ব্যক্তি-‘সম্পত্তি’। শিল্পীর সমস্ত খরচ, গভর্নমেন্টের দায়িত্ব। শিল্পীকে শুধু প্রাণ ঢেলে শিল্প-প্রকাশ করতে বলা হয়। আমাদের দেশে শিল্পীকে পুরো খরচ বহন করে শিল্প-প্রকাশ করতে হয়। আবিষ্কার করতে হয়, যন্ত্রটা বানাতে হয়, বিজ্ঞাপণ দিতে হয়, হল ভাড়া করতে হয়, বিদ্যুতের বিল দিতে হয়, সহ শিল্পীদের পারিশ্রমিক দিতে হয়, মনোরঞ্জনের জন্য পুলিশের অনুমতি নিতে হয়, টিকিট বিক্রীর ওপর আ্যামিউজমেণ্ট ট্যাক্স দিতে হয়, ইনকাম ট্যাক্স দিতে হয়। রাশিয়াতে ওসবের বালাই নেই। মিঃ কিও, বাবাকে খুব শ্রদ্ধা করতেন। বলতেন, “আপনি নিজেই একটা ম্যাজিক। সর্বশ্রেষ্ঠ জাদুকর। ”
এখন দুজনেই অমরলোকে চলে গেছেন।
এখন, মিঃ ‘কিয়ো’র উত্তরসূরী পুত্র “কিয়ো জুনিয়র” নাম নিয়ে, তাঁর বাবার শো এর হাল ধরে গভর্নমেন্টের তত্তাবধানেই শো করছেন। এই প্রজন্মে, ও আমার সবচেয়ে সমব্যথী প্রতিদ্বন্দী বন্ধু। ছবিতে পি সি সরকার জুনিয়রের সঙ্গে কিয়ো জুনিয়রকে, প্রাণ খুলে গল্প করতে দেখা যাচ্ছে।

Be First to Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.